• বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০২:০০ অপরাহ্ন
শিরোনাম
তিউনিসিয়া উপকূলে নৌকা ডুবির ঘটনায় বাংলাদেশী নিহত ৮ আহত ২৭ জীবিত উদ্ধার এলাকার উন্নয়নে প্রত্যেক সংসদ সদস্যরা পাবেন ২০ কোটি টাকা ড. মুহাম্মদ ইউনূস ও আমাদের সমাজ রাজনীতির কারণে পুতিনের শত্রুতেও পরিণত হন নাভালনি কারাগারে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে মারা গেছেন রাশিয়ার বিরোধী দলীয় নেতা নাভালনি ইংরেজিতেও নতুন AADE সাইট তৈরি করল গ্রিক কর্তৃপক্ষ আওয়ামী লীগের যারা সংরক্ষিত নারী আসনে মনোনয়ন পেলেন ইউক্রেন যুদ্ধ থেকে পিছু হটলে গুপ্তহত্যার শিকার হতে পারেন পুতিন : ইলন মাস্ক দেশবরেণ্য আলেম মাওলানা লুৎফর রহমান ব্রেনস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়েছেন ফখরুল ও খসরুর জামিন মঞ্জুর মুক্তি পেতে সব বাধা অপসারিত
বিজ্ঞপ্তি
প্রিয় পাঠক আমাদের সাইটে আপনাকে স্বাগতম এই সাইটি নতুন ভাবে করা হয়েছে। তাই ১৫ই অক্টোবর ২০২০ সাল এর আগের নিউজ গুলো দেখতে ভিজিট করুন : old.bdnewseu24.com

পরিবারে ৩ জন প্রতিবন্ধীঃ বিপাকে লালমনিরহাটের আজিমউদ্দিন

মিজানুর রহমান লালমনিরহাট প্রতিনিধি
আপডেট : শনিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০২০

একই পরিবারে ৩ জন প্রতিবন্ধীঃ বিপাকে লালমনিরহাটের আজিমউদ্দিন

লালমনিরহাটের হাতিবান্ধায় একই পরিবারে তিন বুদ্ধি ও শারীরিক প্রতিবন্ধী সদস্য নিয়ে চরম বিপাকে পড়েছেন দরিদ্র, অসহায় বৃদ্ধ আজিজউদ্দিন।

কিন্তু নেই চিকিৎসার অর্থ। আর সেটা থাকারও কথা নয়। দরিদ্র, অসহায় পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম চল্লিশোর্ধ্ব ব্যক্তিটি রিক্সা চালিয়ে ৮ জনের পরিবার চালিয়ে ৩ জনের চিকিৎসা করার কথা কল্পনাও করতে পারেন না।

উপজেলার বড়খাতা ইউনিয়নের পুর্ব সাড়ডুবি এলাকার ৯ নং ওয়ার্ডের প্রবীণ বাসিন্দা আজিমউদ্দিন (৭৫)।কিছুদিন আগেও দিনমজুরের কাজ করে সংসারের হাল ধরে রাখলেও বয়সের ভাড়ে কর্মক্ষমতা হারান।তাই কেউ আর কাজেও নেয়না।এজন্য ৮ জনের পরিবারের হাল ধরতে হয় বৃদ্ধ আজিমউদ্দিন এর বড় ছেলে আবদুর রাজ্জাক মিন্টু (৪০)।মিন্টু ঢাকায় ভাড়ায় রিক্সা চালিয়ে সংসার চালায়।

দীর্ঘদিন থেকে মাথার সমস্যায় ভুগছে বৃদ্ধ আজিমউদ্দিন এর ছোট ছেলে আশরাফুল আলম (৩৩) অপরদিকে বড় ছেলে মিন্টুর ২ টি ছেলে সাইফুর রহমান (১৩) জন্ম থেকে সব সময় চিৎকার করে, ঘাড় নাড়ে, মাটিতে গড়াগড়ি করে আর কিছুই খেতে চায় না এবং এক ছেলে রহমত (৫) চোখের সমস্যায় এক দিকে তাকিয়ে থাকে।

একবছর আগে লালমনিরহাট-১ আসনের সংসদ সদস্য মোতাহার হোসেন(এমপি)’র দেয়া ৩০,০০০ টাকা দিয়ে ৩ শতক জমির উপর একটি চালা ঘর নির্মাণ করে পরিবারের ৮ সদস্য নিয়ে দিনাতিপাত করছে বৃদ্ধ আজিমউদ্দিন।কিন্তু সেই ঘরের অবস্থাও এখন জীর্ণশীর্ণ।আজিমউদ্দিন জানান এখন সংসার চালানো ও অসুস্থদের চিকিৎসা করার মতো সামর্থ্য নেই তার।

এক প্রশ্নের উত্তরে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন বৃদ্ধ আজিমউদ্দিন।কাঁদতে কাঁদতে বলেন, “আমাদের বেঁচে থেকে কোন লাভ নেই। এতো কষ্টের চাইতে মরে যাওয়াই অনেক ভালো।অসুস্থ ৩ জনের চিকিৎসা করা তো দূরের কথা, ডাক্তারকে ভিজিট দিব সে টাকাই তো আমার নেই।বড় ছেলে মিন্টু অন্যের রিক্সা ভাড়ায় চালিয়ে সামান্য যে টাকা আয় করে তা দিয়ে সংসারই চলে না।পড়নের কাপড় নেই।এরপরে আমি তাদের চিকিৎসা করব কিভাবে”।

আজিমউদ্দিন নিজের জন্য কিছু ভাবেন না। তার যত ভাবনা সব বাকি সদস্য ও অসুস্থ তিনজনকে নিয়ে। তিনি বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও বিত্তবানদের প্রতি অনুরোধ জানান তার পরিবারের পাশে দাড়ানোর জন্য।মৃত্যুর আগে তিনি তার পরিবারের সদস্যদের মুখে হাসি দেখতে চান এটাই তার শেষ ইচ্ছা।

এ বিষয়ে বড়খাতা ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য মাসুম আলী জানান, ওই পরিবারটিকে ইউনিয়ন পরিষদ থেকে সহযোগিতা করা হচ্ছে।কিন্তু পারিবারের ৩ জন সদস্যের চিকিৎসার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও বিত্তবানরা যদি সহযোগিতা করেন তাহলে হয়তো অসহায় পরিবারটির অসুস্থ সদস্যদের চিকিৎসা হবে।

সহযোগিতার জন্য যোগাযোগ-০১৭৮৮-১৩৩৬২৩(আজিমউদ্দিন)।
বিডিনিউজ ইউরোপ /১২ ডিসেম্বর / জই


আরো বিভন্ন ধরণের নিউজ