• বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৮:৫৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম
তিউনিসিয়া উপকূলে নৌকা ডুবির ঘটনায় বাংলাদেশী নিহত ৮ আহত ২৭ জীবিত উদ্ধার এলাকার উন্নয়নে প্রত্যেক সংসদ সদস্যরা পাবেন ২০ কোটি টাকা ড. মুহাম্মদ ইউনূস ও আমাদের সমাজ রাজনীতির কারণে পুতিনের শত্রুতেও পরিণত হন নাভালনি কারাগারে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে মারা গেছেন রাশিয়ার বিরোধী দলীয় নেতা নাভালনি ইংরেজিতেও নতুন AADE সাইট তৈরি করল গ্রিক কর্তৃপক্ষ আওয়ামী লীগের যারা সংরক্ষিত নারী আসনে মনোনয়ন পেলেন ইউক্রেন যুদ্ধ থেকে পিছু হটলে গুপ্তহত্যার শিকার হতে পারেন পুতিন : ইলন মাস্ক দেশবরেণ্য আলেম মাওলানা লুৎফর রহমান ব্রেনস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়েছেন ফখরুল ও খসরুর জামিন মঞ্জুর মুক্তি পেতে সব বাধা অপসারিত
বিজ্ঞপ্তি
প্রিয় পাঠক আমাদের সাইটে আপনাকে স্বাগতম এই সাইটি নতুন ভাবে করা হয়েছে। তাই ১৫ই অক্টোবর ২০২০ সাল এর আগের নিউজ গুলো দেখতে ভিজিট করুন : old.bdnewseu24.com

কলিকাতায় বাংলাদেশ মিশন ঘেরাও এর চেষ্টা পতাকা ও কুশপুত্তলিকা পুড়ানো

রাকিব হাসান ইন্টারন্যাশনাল ডেক্স
আপডেট : শনিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০২০

কলকাতায় বাংলাদেশ ডেপুটি হাইকমিশন ঘেরাও চেষ্টা হয়েছে এবং এব্যাপারে নয়াদিল্লিকে কূটনৈতিক পত্র দেবে ঢাকা। কুমিল্লার মুরাদনগরে হিন্দুদের বাড়ি-ঘরে হামলা ও অগ্নিসংযোগসহ সম্প্রতি দেশের বিভিন্ন স্থানে সংখ্যালঘুদের ওপর হামলার প্রতিবাদে মঙ্গলবার ভারতের কট্টর হিন্দুত্ববাদী সংগঠন বিশ্ব হিন্দু পরিষদ ও বজরং দলের কলকাতার বাংলাদেশ উপ হাইকমিশন ঘেরাওয়ের চেষ্টা করে। -যুগশঙ্খ

ভারতের দৈনিক যুগশঙ্খের প্রতিবেদনে বলা হয়, এ সময় তারা সেখানে বাংলাদেশের পতাকা ও প্রধানমন্ত্রীর কুশপুত্তলিকা দাহ করে বিক্ষোভ করতে থাকে। বিক্ষোভ চলাকালে সংগঠনটির প্রায় ৬শ’ নেতাকর্মীকে আটকের পর ছেড়ে দেয় কলকাতা পুলিশ। বাংলাদেশের পতাকা ও প্রধানমন্ত্রীর কুশপুত্তলিকা দাহ করার ঘটনায় বাংলাদেশের কূটনৈতিক পত্র পাঠানোর বিষয়টি ভারতীয় গণমাধ্যমেও উঠে এসেছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বশীল কর্মকর্তা এ তথ্য জানিয়ে বলেছেন, সেখানে আমাদের মিশনের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন হতে হলে সেটি নিয়ে কূটনৈতিক চ্যানেলে আলোচনা হতেই পারে। প্রতিবেশী দেশ হিসেবে আগের তুলনায় ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্ক ভালো। নিরাপত্তা বিশ্লেষক মেজর জেনারেল (অব.) আবদুর রশীদ গণমাধ্যমকে বলেন, উভয় দেশের সম্পর্কের জায়গা থেকে এ ধরণের ঘটনা দুঃখজনক। এ ধরণের ঘটনা উভয় দেশের মধ্যে অবশ্যই কিছু না কিছু প্রভাব পড়ে। সাবেক সাবেক পররাষ্ট্র সচিব মো. তৌহিদুর রহমান বলেন, বিক্ষোভকারীদের যদি কিছু বলার থাকে দু’জন গিয়ে মিশনে স্মারকলিপি দিতে পারতো। ঢাকায় ভারতীয় হাইকমিশনে যাতে এখানের কোনো উগ্রপন্থীরা এ ধরনের কর্মকাণ্ড না করতে পারে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।সূত্র-ইনকিলাব
বিডিনিউজ ইউরোপ/১৪ নভেম্বর/ জহিরুল ইসলাম


আরো বিভন্ন ধরণের নিউজ