• সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:৩৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
লিবিয়া থেকে দেশে ফেরত পাঠিয়েছে ১৪৪ জন প্রবাসীকে গ্রিসের আবাসন সংকট নিরসনে গোল্ডেন ভিসার বিনিয়োগ বৃদ্ধির ঘোষণা গ্রিস ও বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক এবং শিক্ষা ক্ষেত্রে সহযোগিতা বিষয়ক চুক্তির অগ্রগতি নেই হাইকোর্টে প্রার্থিতা ফিরে পেলেন সাদিক আব্দুল্লাহ জার্মানির মিউনিখের ইউরোপ বিএনপির ব্যাপক বিক্ষোভ প্রদর্শন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ইইউ প্রেসিডেন্ট উরসুলার অভিনন্দন তিউনিসিয়া উপকূলে নৌকা ডুবির ঘটনায় বাংলাদেশী নিহত ৮ আহত ২৭ জীবিত উদ্ধার এলাকার উন্নয়নে প্রত্যেক সংসদ সদস্যরা পাবেন ২০ কোটি টাকা ড. মুহাম্মদ ইউনূস ও আমাদের সমাজ রাজনীতির কারণে পুতিনের শত্রুতেও পরিণত হন নাভালনি
বিজ্ঞপ্তি
প্রিয় পাঠক আমাদের সাইটে আপনাকে স্বাগতম এই সাইটি নতুন ভাবে করা হয়েছে। তাই ১৫ই অক্টোবর ২০২০ সাল এর আগের নিউজ গুলো দেখতে ভিজিট করুন : old.bdnewseu24.com

শীতার্ত মানুষের মাঝে ছাত্র ফেডারেশনের কম্বল বিতরণ

গোলাম মোস্তফা রাজনৈতিক প্রতিবেদক ঢাকা
আপডেট : রবিবার, ৩ জানুয়ারী, ২০২১
ai

শীতার্ত মানুষের মাঝে ছাত্র ফেডারেশনের কম্বল বিতরণ।

আজ ৩ জানুয়ারি, রবিবার, দুপুর ২টায় নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের বন্দর থানার ১৯ নং ওয়ার্ডের শান্তিনগর এলাকায় শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছে বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশন। জেলার সভাপতি শুভ দেব সহ উক্ত কর্মসূচিতে আরও উপস্থিত ছিলেন কবি আরিফ বুলবুল, রাজারবাগ কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালের ডেন্টাল বিভাগের প্রধান ডা. ফরহাদ আহাম্মেদ জেনিথ, ছাত্র ফেডারেশন জেলার অর্থ সম্পাদক ফারহানা মানিক মুনা, মহানগর কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক তাকবীর হোসেন, জেলার ভারপ্রাপ্ত দপ্তর সম্পাদক সাইদুর রহমান, বন্দর থানার সংগঠক শাহেদুল ইসলাম, কামরুল হাসান সহ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

শুভ দেব বলেন, প্রতি বছরের ন্যায় এবছরও আমরা ছাত্র ফেডারেশনের উদ্যোগে শীতার্ত মানুষের জন্য অর্থ-বস্ত্র উত্তোলন করার কাজ শুরু করি। গত ৭/৮ দিন আমাদের কর্মীরা অক্লান্ত পরিশ্রম করে মানুষের কাছ থেকে এই সহযোগীতা উত্তোলন করেছে। সেগুলোই এখন আমরা মানুষের কাছে পৌঁছে দিচ্ছি। এর আগে আমরা নাঃগঞ্জ শহীদ মিনারের আশেপাশে যে বঞ্চিত পথশিশুরা রয়েছে তাদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ করেছি। আজকে আমরা বন্দরে ৫০ টি পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরণ করলাম। এছাড়াও আমাদের উত্তোলিত অর্থের একটা অংশ আমরা খাগড়াছড়ি জেলার দূর্গম পাহাড়ের আদিবাসীদের জন্য পাঠিয়েছি।

তিনি আরও বলেন, যখন এই সহায়হীন মানুষগুলোর দায় রাষ্ট্র নিতে অস্বীকার জানায় তখনি আমরা বাধ্য হই নিজেদেরকে এই ধরনের মানবিক কাজে যুক্ত করবার। করোনা, বন্যা’সহ যেকোনো প্রকার প্রাকৃতিক দূর্যোগে আমরা সবসময় চেষ্টা করেছি মানুষের পাশে থাকবার। তারই অংশ হিসেবে সারাদেশে ‘শীতার্ত সহযোগীতা কেন্দ্র’ এর নামে আমাদের কার্যক্রম চলছে। আমরা দেশের সকল সার্মথ্যবান মানুষের প্রতি আহ্বান জানাই শীতার্ত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য। আর বরাবরের মতোই নারায়ণগঞ্জবাসীর প্রতি আমরা কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। তাদের অকুণ্ঠ সহযোগীতা ছাড়া এই কাজ এগিয়ে নিয়ে যাওয়া আমাদের পক্ষে সম্ভবপর হতো না।
বিডিনিউজ ইউরোপ /৪ ডিসেম্বর / জই


আরো বিভন্ন ধরণের নিউজ