• বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:২৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম
তিউনিসিয়া উপকূলে নৌকা ডুবির ঘটনায় বাংলাদেশী নিহত ৮ আহত ২৭ জীবিত উদ্ধার এলাকার উন্নয়নে প্রত্যেক সংসদ সদস্যরা পাবেন ২০ কোটি টাকা ড. মুহাম্মদ ইউনূস ও আমাদের সমাজ রাজনীতির কারণে পুতিনের শত্রুতেও পরিণত হন নাভালনি কারাগারে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে মারা গেছেন রাশিয়ার বিরোধী দলীয় নেতা নাভালনি ইংরেজিতেও নতুন AADE সাইট তৈরি করল গ্রিক কর্তৃপক্ষ আওয়ামী লীগের যারা সংরক্ষিত নারী আসনে মনোনয়ন পেলেন ইউক্রেন যুদ্ধ থেকে পিছু হটলে গুপ্তহত্যার শিকার হতে পারেন পুতিন : ইলন মাস্ক দেশবরেণ্য আলেম মাওলানা লুৎফর রহমান ব্রেনস্ট্রোকে আক্রান্ত হয়েছেন ফখরুল ও খসরুর জামিন মঞ্জুর মুক্তি পেতে সব বাধা অপসারিত
বিজ্ঞপ্তি
প্রিয় পাঠক আমাদের সাইটে আপনাকে স্বাগতম এই সাইটি নতুন ভাবে করা হয়েছে। তাই ১৫ই অক্টোবর ২০২০ সাল এর আগের নিউজ গুলো দেখতে ভিজিট করুন : old.bdnewseu24.com

নভেম্বরে ঘূর্ণিঝড়ের পূর্বাভাস

ডেস্ক নিউজ বিডিনিউজ ইউরোপ
আপডেট : সোমবার, ২ নভেম্বর, ২০২০
ছবি : সংগৃহীত

নভেম্বরে সাগরে দুয়েকটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে, যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নিতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। সোমবার চলতি মাসের আবহাওয়ার দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে। আবহাওয়া অধিদপ্তরের পরিচালক শামসুদ্দিন আহমেদ জানান, এ মাসে দিনের ও রাতের তাপমাত্রা ধীরে ধীরে কমবে। তবে গড় তাপমাত্রা স্বাভাবিক থাকবে।তিনি বলেন, ‘নভেম্বরে স্বাভাবিকের চেয়ে একটু বেশি বৃষ্টিপাত হতে পারে। বঙ্গোপসাগরে দুয়েকটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে; যার মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে।’গেল মাসে স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি বৃষ্টিপাত হয়েছে। ১ ও ২০ অক্টোবর সাগরে লঘুচাপ সৃষ্টি হয়। এরমধ্যে তা ঘনীভূত হয়ে দুটি নিম্নচাপও হয়েছে। নভেম্বরের প্রথমদিনও লঘুচাপ ছিল। সাগরে তিন নম্বর সতর্কতা দেখাতে বলে। সোমবার সতর্ক সংকেত নামিয়ে ফেলতে বলা হয়।

আবহাওয়াবিদরা বলছেন, নভেম্বর মাসে রাতের তাপমাত্রা কমতে থাকবে। ডিসেম্বরের শেষার্ধে দেশের উত্তর, উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও মধ্যাঞ্চলে মৃদু থেকে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।হেমন্তে সন্ধ্যা-রাত ও ভোরে কুয়াশা থাকা বা হালকা বৃষ্টি অস্বাভাবিক কিছু নয়। নভেম্বর মাসের মাঝামাঝি সময়ে শীতালু ভাব বাড়বে। সে সময় উত্তুরে হাওয়া না বইলেও মধ্য কার্তিকে ঝিরঝিরে বৃষ্টি থাকলে শীতের অনুভূতি বাড়িয়ে দেয়।

জানতে চাইলে আবহাওয়াবিদ শাহনাজ সুলতানা জানান, অক্টোবর-নভেম্বরে এ ধরনের লঘুচাপ সৃষ্টি হয়। এ সময় ঘূর্ণিঝড়েরও শঙ্কা থাকে।তিনি জানন, কয়েকদিন বৃষ্টিও ছিল। তা কেটে গেছে। ইতোমধ্যে শীতের অনুভূতিও বাড়ছে। ডিসেম্বরে শীতের আবহ বিরাজ করবে স্বাভাবিকভাবে। ৩১ অক্টোবর দেশের সবনিম্ন তাপমাত্রা ছিল তেঁতুলিয়ায় ১৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

বিডিনিউজ ইউরোপ/২০আগস্ট২০২০/জই/আবহাওয়া


আরো বিভন্ন ধরণের নিউজ